CLOSE ADS
CLOSE ADS

Advertisement

প্রস্তুত জাতীয় স্মৃতিসৌধ

প্রকাশিতঃ সোমবার, ২৫ মার্চ, ২০১৯ | বার পড়া হয়েছে Last Updated 2019-03-25T10:33:01Z
বিজ্ঞাপন

আগামীকাল ২৬শে মার্চ। মহান স্বাধীনতা দিবস। আর তাই জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদনে প্রস্তুত সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধ। দিবসটি পালনে ইতোমধ্যেই সৌধ চত্বরের সৌন্দর্য বর্ধনের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। সম্পন্ন হয়েছে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর রাষ্ট্রীয় সম্মান নিবেদনে তিনবাহিনীর কসরত। কড়া নিরাপত্তা বলয় গড়ে তুলে স্থানীয় পুলিশও প্রস্তুত দিবসটি পালনে।
স্বাধীনতাকামী বীরদের বীরত্বের স্মরণ এবং বীর শহীদদের প্রতি জাতির কৃতজ্ঞতা প্রকাশ ও শ্রদ্ধা নিবেদনে ঢাকার অদূরে সাভারে অবস্থিত জাতীয় স্মৃতিসৌধ। নাম জানা-অজানা লাখো বীর শহীদদের স্মরণে নির্মিত পবিত্র এ স্থানটি ধুয়ে-মুছে পরিষ্কার আর রং-তুলির আঁচড়ে রাঙানো হয়েছে। কেটে-ছেঁটে পরিষ্কার করা হয়েছে সবুজ অরণ্যের গাছ-গাছালি, সবুজ ঘাস। সারিয়ে নেয়া হয়েছে ল্যাম্প পোস্টের বাতি।
সৌন্দর্য বর্ধন করা হয়েছে স্মৃতির মিনার, ফুল বাগান, পুস্পবেদী, গণসমাধি, কৃত্রিম হ্রদ, হেলিপ্যাড, অভ্যথর্না কেন্দ্র, উন্মুক্ত মঞ্চ, মসজিদসহ সৌধ চত্বরের সকল স্থাপনার। সৌন্দর্য বর্ধনের সকল কাজ শেষে ফুলে ফুলে সুশোভিত স্মৃতিসৌধ প্রস্তুত জাতির শ্রেষ্ট সন্তানদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে।
জাতীয় স্মৃতিসৌধের দায়িত্বে নিয়োজিত গণপূর্ত বিভাগের উপ-সহকারী প্রকৌশলী মো. মিজানুর রহমান জানান, প্রতিবছরই স্বাধীনতা দিবসে জাতীয় স্মৃতিসৌধকে বর্ণিল করে তোলা হয়। এবারও তার ব্যতিক্রম নয়। আমাদের আয়োজনের কমতি নেই।
মিজানুর রহমান জানান, এবার ৪৯তম মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস পালন করবে গোটা জাতি। স্বাধীনতা দিবসের প্রত্যুষে জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তানদের শ্রদ্ধা জানাবেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী। এরপর দলীয় প্রধান হিসেবে নেতা-কর্মীদের সঙ্গে আরও একবার শ্রদ্ধা জানাবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পরে জাতীয় সংসদের স্পিকার, বিরোধী দল, মন্ত্রীপরিষদ সদস্য, কুটনৈতিক ব্যক্তিবর্গ, সরকারি বেসরকারি সংস্থার প্রধানরা শ্রদ্ধা জানাবেন। এরপরই স্মৃতিসৌধের মূল ফটক খুলে দেয়া হবে সাধারণ দর্শনার্থীদের জন্য।
স্বাধীনতা দিবসে মানুষের ঢল নামে জাতীয় স্মৃাতিসৌধে। তাই নিরাপত্তা জোরদারে আগাম প্রস্তুতি নিয়েছে ঢাকা জেলা পুলিশ।
ঢাকা জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. সাইদুল ইসলাম জানান, প্রধানমন্ত্রী ও রাষ্টপতিসহ সকল দর্শনার্থীর নিরাপত্তা বিধানে পুরো স্মৃতিসৌধে অতিরিক্ত পুলিশ ছাড়াও র্যাব, সেনা সদস্য মোতায়েন থাকবে। সিসিটিভির মাধ্যমেও নজরদারি থাকবে পুলিশের। আইন মেনে দর্শনার্থীদের স্মৃতিসৌধে প্রবেশ করতে হবে।
স্মৃতিসৌধে রাষ্ট্রীয় শ্রদ্ধা নিবেদনের মূল পর্বটি সম্পন্ন হয় তিনবাহিনীর অংশগ্রহণে। তাদেরও প্রস্তুতি শেষ। সব মিলিয়ে পুরোপুরি প্রস্তুত জাতীয় স্মৃতিসৌধ। জাতির শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় সিক্ত হতে অপেক্ষায় এখন শহীদ বেদি।
Comments
comments will be posted if they are on-topic and not abusive, moderation decisions are subjective. Published comments are readers’ own views and Fulbaria Today does not endorse any of the readers’ comments.
  • প্রস্তুত জাতীয় স্মৃতিসৌধ

Trending Now

Advertisement