ফুলবাড়িয়ায় বনের মধ্যে অবৈধ করাতকলে অভিযান

ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়া উপজেলার বনের ভিতরে করাতকলে ভ্রাম্যমাণ আদালতে অভিযানের চালিয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার এ অভিযানের খবর মুহুর্তের মধ্যেই ছড়ি...


ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়া উপজেলার বনের ভিতরে করাতকলে ভ্রাম্যমাণ আদালতে অভিযানের চালিয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার এ অভিযানের খবর মুহুর্তের মধ্যেই ছড়িয়ে পড়লে প্রায় প্রত্যেকটি করাতকলের যন্ত্রাংশ খুলে নিয়ে মালিক ও শ্রমিকরা পালিয়ে যায়।
এর আগে বুধবার কালের কণ্ঠে পত্রিকায় ‘বনের মধ্যে অবৈধ করাতকল’ শিরোনামে সচিত্র প্রতিবেদন প্রকাশ হওয়ার পর প্রশাসনের টনক নড়ে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত অবৈধ করাতকলে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান চালায় সহকারী কমিশনার ভূমি ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কামরুন্নাহার শেফা। বনের এলাকার মধ্যে পুটিজানা ইউনিয়ন, কুশমাইল ইউনিয়ন, নাওগাঁও ইউনিয়ন, বাকতা ইউনিয়ন ও পৌর সদরের অবৈধ করাতকলে অভিযান চালায়।
করাতকল (লাইসেন্স) বিধিমালা ২০১২ সালের আইনের ৩ ও ৭ ধারা মোতাবেক শিবগঞ্জ বাজারে নজরুল ইসলামের করাতকল, বালুঘাচ বাজার হেলাল উদ্দিনের করাতকল, নুরুল ইসলামের করাতকল, সিরাজুল ইসলামের করাতকল, কেশরগঞ্জ শামছুল হকের করাতকলে, রাজ্জাকের করাতকলসহ ১৫টি অবৈধ করাতকল বন এলাকায় স্থাপন করায় মালিকদের ১০ হাজার টাকা করে দেড় লাখ টাকা জরিমানা করে আদায় করা হয়। এ সময় করাতকলগুলো বন্ধ রাখার নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে।
অভিযানের খবরে রাঙ্গামটির ইউনিয়নের সেলিমস (করাতকল) মিলের শ্রমিক ও মালিক পালিয়ে যাওয়ায় যন্ত্রাংশ জব্দ করেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট।
অভিযান পরিচালনা সময় সন্তোষপুর বিট কর্মকর্তা মো. আশরাফুল আলম খান, এনায়েতপুর বিট কর্মকর্তা মো. নূর মোহাম্মদ ও উথুরা সদর বিট কর্মকর্তা জাহেদুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

সূত্রঃ kalerkantho

Related

ফুলবাড়িয়া 7146379635812086678

সর্বশেষ খবর

    ফেসবুক


    item